, ৯ মাঘ ১৪২৮ অনলাইন সংস্করণ

শীতের আগে শুষ্ক ত্বকের যত্ন

  লাইফস্টাইল ডেস্ক

  প্রকাশ : 

শীতের আগে শুষ্ক ত্বকের যত্ন

যাদের ত্বকের ধরন শুষ্ক তারা সবচেয়ে বেশি সমস্যায় পড়েন শীতকালে। শুধু যে মুখ বা হাত-পায়ের ত্বক ফেটে যায় তা কিন্তু নয়, সেইসঙ্গে সেইসঙ্গে কনুই, ঠোঁট, গোড়ালি ফাটার সমস্যাও শুরু হয়। চুলকানি, ফুসকুড়িসহ ত্বকের আরও অনেক সমস্যা দেখা দিতে পারে। আপনার ত্বক যতই শুষ্ক হোক না কেন, সারাবছর নিয়মিতভাবে যত্ন নিলে সমস্যা হয় না। সেইসঙ্গে ত্বক থাকে কোমল ও উজ্জ্বল। শীত পুরোপুরি জেঁকে বসার আগেই শুষ্ক ত্বকের যত্নে নিয়মিত হোন।

দিনের শুরুতে যত্ন

সকালে ঘুম থেকে উঠেই যে কাজটি করবেন সেটি হলো, চোখে-মুখে ঠান্ডা পানির ঝাপটা দেবেন। শীতকাল এলে ঠান্ডা পানির বদলে হালকা গরম পানি ব্যবহার করতে পারেন। তবে কখনোই গরম পানি ত্বকে ছোঁয়াবেন না। গরম পানি ত্বককে আরও বেশি শুষ্ক করে দেবে। 

ঠান্ডা পানির ঝাপটা দেওয়ার পর ক্লিনজার দিযে মুখ, গলা ও ঘাড় পরিষ্কার করুন। এরপর অয়েল বেসড ক্লিনজার দিয়ে ভালোভাবে মুখ পরিষ্কার করে নেবেন। প্রয়োজনে নারিকেল তেলও ব্যবহার করতে পারেন। এরপর ওয়াটার বেসড ক্লিনজার দিয়ে মুখ আরও একবার পরিষ্কার করে নেবেন। টোনিংয়ের জন্য ব্যবহার করতে পারেন গোলাপজল। এটি ত্বকের আর্দ্রতা বজায় রাখে।

এরপর ময়েশ্চারাইজারের পালা। ত্বকের শুষ্কতা থেকে মুক্তি দিতে ময়েশ্চারাইজারের ভূমিকা গুরুত্বপূর্ণ। আপনার ত্বক শুষ্ক হলে সব সময় ক্রিম বা অয়েল বেসড ময়েশ্চারাইজার ব্যবহার করবেন। মুখে, গলায়, হাতে ভালোভাবে ময়েশ্চারাইজার লাগিয়ে নেবেন। আপনি যখন মুখে মাসাজ করবেন, চেষ্টা করবেন স্ট্রোক সবসময় ওপরের দিকে করতে। এতে মাসল ও চামড়া ঝুলে যাওয়ার ভয় থাকে না। আর চোখের চারপাশে সার্কুলার মোশনে মাসাজ করতে হবে।

ময়েশ্চারাইজার ব্যবহারের পর অবশ্যই সানস্ক্রিন ব্যবহার করবেন। অনেকে সকালে সানস্ক্রিন ব্যবহারের প্রয়োজন অনুভব করে না। কিন্তু এটি ঠিক নয়। সকালের রোদ হলেও ইউ-ভি রশ্মি আপনার ত্বকের ক্ষতি ডেকে আনার জন্য যথেষ্ট।

দিনের বেলায় ত্বকের যত্ন

গোসলের আগে আপনার জন্য মানানসই কোনো বডি অয়েল পুরো শরীরে অন্তত পাঁচ মিনিট মাসাজ করুন। সম্ভব হলে ঠান্ডা পানিতে গোসল করুন।  শীতকালে হালকা গরম পানিতে গোসল করতে পারেন। তবে একেবারে ধোঁয়া-ওঠা গরম পানি ব্যবহার করবেন না। যতদিন শীত পুরোপুরি না আসে, স্বাভাবিক ঠান্ডা পানিতেই গোসলের অভ্যাস ধরে রাখুন।

গোসলের পর মুখে ময়েশ্চারাইজার ও হাত-পা এবং শরীরের বাকি অংশে বডি লোশন লাগিয়ে নিন ভালো করে। শরীরের উন্মুক্ত অংশে অবশ্যই সানস্ক্রিন ব্যবহার করবেন। প্রতিদিন যদি বাইরে বের হতে হয় তবে অবশ্যই লিপবাম, সানস্ক্রিন, ময়েশ্চারাইজার সঙ্গে নিয়ে বের হবেন।

রাতের যত্ন

সন্ধ্যায় বাড়ি ফিরে সবার আগে মুখের মেকআপ পরিষ্কার করে নেবেন। সারাদিন মুখে মেকআপ থাকার ফলে ত্বক ঠিকভাবে নিঃশ্বাস নিতে পারে না। সে কারণে বাড়ি ফিরে মেকআপ তোলাটা সবার আগে জরুরি। মেকআপ রিমুভার কিংবা ক্লিনজিং অয়েল দিয়ে মেকআপ  তুলে নিন। এরপর হালকা গরম পানিতে মুখ ধুয়ে নিন। সকালে মুখ ধোওয়ার পর যে পদ্ধতিতে ত্বকের যত্ন নিয়েছিলেন, সেভাবেই ব্যবহার করুন। তবে রাতে যেহেতু সূর্য ওঠে না তাই সানস্ক্রিন ব্যবহারের প্রয়োজন নেই। এর বদলে নাইটক্রিম ব্যবহার করুন।

  • সর্বশেষ - লাইফ স্টাইল