, ১৪ মাঘ ১৪২৮ অনলাইন সংস্করণ

মেম্বারের বিরুদ্ধে মাছ ব্যবসায়ীর টাকা ছিনিয়ে নেওয়ার অভিযোগ

  নিজস্ব প্রতিবেদক

  প্রকাশ : 

মেম্বারের বিরুদ্ধে মাছ ব্যবসায়ীর টাকা ছিনিয়ে নেওয়ার অভিযোগ

বাগেরহাটের মোংলায় রিপন শেখ (৩৪) নামে এক মাছ ব্যবসায়ীকে মারধরের পর টাকা ছিনিয়ে নেওয়ার অভিযোগ উঠেছে স্থানীয় ইউপি সদস্যের বিরুদ্ধে।

এ ঘটনায় বুধবার (৩ নভেম্বর) রাতে থানায় লিখিত অভিযোগ দিয়েছেন ওই মাছ ব্যবসায়ী।

অভিযোগ সূত্রে জানা যায়, উপজেলার মিঠাখালী ইউনিয়নের মিঠাখালী গ্রামের মো. রিপন শেখ দীর্ঘদিন ধরে চিংড়ি মাছ কেনা-বেচা করে আসছেন। বুধবার বিকেল সাড়ে ৩টার দিকে মিঠাখালী বাজার থেকে মাছ কিনে নিয়ে মিজানের দোকানের সামনে গেলে স্থানীয় ইউপি সদস্য মো. উকিল উদ্দীন ইজারাদার (৪৫) লোকজন নিয়ে রিপনকে ঘিরে ফেলেন।

এ সময় উকিল মেম্বারসহ তার সঙ্গে থাকা শুক্কুর গোলদার (৪০), সুমন গোলদার (২৫) ও সেলিম শেখ (৪২) লাঠি-সোটা দিয়ে পিটিয়ে মাছ ব্যবসায়ী রিপনকে আহত করেন। মারধরের এক পর্যায়ে রিপন রাস্তায় লুটিয়ে পড়লে তার কাছে থাকা ২০ হাজার ৫০০ টাকা ছিনিয়ে নেন মেম্বারের সহযোগী শুক্কুর গোলদার। সেখান থেকে তাকে ধরে নিয়ে মেম্বারের কাকড়ার ডিপো ঘরে তালা দিয়ে আটকে রাখা হয়।

খবর পেয়ে বাজারের লোকজন মেম্বারকে অনুরোধ জানিয়ে তালাবদ্ধ ঘর থেকে রিপনকে উদ্ধার করেন। এ ঘটনায় রাতে রিপন থানায় লিখিত অভিযোগ দেন।

রিপন বলেন, অহেতুক উকিল মেম্বার তার লোকজন নিয়ে আমাকে মারধর করে। আমার কাছে থাকা মাছ কেনা-বেচার নগদ সাড়ে ২০ হাজার টাকা ছিনিয়ে নিয়ে আমাকে তার ঘরে আটকে রাখেন। পরে বাজারের লোকজন মেম্বারকে অনেক অনুরোধ করে আমাকে ছাড়িয়ে আনেন।

তিনি আরও বলেন, মাছ বেচা-কেনা নিয়ে উকিলের সঙ্গে আমার আগের বিরোধ ছিল। উকিল মেম্বার হওয়ার পর সেই শোধ নিয়েছে। এছাড়া আর কী হবে।

অভিযোগের বিষয়ে জানতে চাইলে মিঠাখালী ইউনিয়নের ১ নম্বর ওয়ার্ডের মেম্বার উকিল উদ্দীন ইজারাদার বলেন, রিপনের সঙ্গে আমার এমন কোনো ঘটনা ঘটেনি। প্রতিপক্ষরা আমাকে হয়রানি করতে এসব অপপ্রচার চালাচ্ছেন।

এ বিষয়ে মোংলা থানার পরিদর্শক (তদন্ত) ঠাকুর দাস বলেন, এ ঘটনার একটি অভিযোগ আমরা পেয়েছি। তদন্ত করে অবশ্যই প্রয়োজনীয় আইনানুগ ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

  • সর্বশেষ - সারাদেশ