, ১৪ মাঘ ১৪২৮ অনলাইন সংস্করণ

‘মুক্তিযোদ্ধাদের স্বচ্ছ তালিকা করতে না পারা সরকারের ব্যর্থতা’

  নিজস্ব প্রতিবেদক

  প্রকাশ : 

‘মুক্তিযোদ্ধাদের স্বচ্ছ তালিকা করতে না পারা সরকারের ব্যর্থতা’

স্বাধীনতার ৫০ বছরেও মুক্তিযোদ্ধাদের পরিপূর্ণ স্বচ্ছ একটি তালিকা দেশবাসীকে উপহার দিতে না পারা ক্ষমতাসীন সরকারের ব্যর্থতা বলে মন্তব্য করেছেন ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশের মহাসচিব ইউনুছ আহমাদ।

শনিবার (২০ নভেম্বর) ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশের কেন্দ্রীয় মুক্তিযুদ্ধ-বিষয়ক বিভাগের উদ্যোগে দলের বিভিন্ন জেলার মুক্তিযোদ্ধা-বিষয়ক সম্পাদক, মুক্তিযোদ্ধা ও মুক্তিযোদ্ধা প্রজন্মের সঙ্গে মতবিনিময়কালে তিনি এ মন্তব্য করেন।

রাজনৈতিক মতভিন্নতাসহ অন্য যেকোনো কারণে যেসব প্রকৃত মুক্তিযোদ্ধা স্বীকৃতি থেকে বঞ্চিত রয়েছেন ডিসেম্বরের মধ্যে তাদের স্বীকৃতির দাবি জানিয়ে ইসলামী আন্দোলনের মহাসচিব বলেন, ‘দেশের মানুষ যে আশা নিয়ে দেশকে স্বাধীন করেছিল সেই আশা আজও পূরণ হয়নি। আজ দুর্নীতি, লুটপাট, বৈষম্য, জুলুম-নির্যাতন চলছে। ভোটের অধিকার থেকে মানুষ বঞ্চিত। এ পরিস্থিতিতে স্বাধীন-সার্বভৌম বাংলাদেশকে একটি কল্যাণকর রাষ্ট্র প্রতিষ্ঠায় চরমোনাই পীরের নেতৃত্বে সবাইকে ঐক্যবদ্ধ হওয়ার কোনো বিকল্প নেই।’

ইসলামী আন্দোলনের কেন্দ্রীয় মুক্তিযোদ্ধা-বিষয়ক সম্পাদক বীর মুক্তিযোদ্ধা আবুল কাশেমের সভাপতিত্বে ও মুক্তিযুদ্ধ প্রজন্ম পরিষদের সহ-সভাপতি মুহাম্মাদ নুরুজ্জামান সরকারের সঞ্চালনায় মতবিনিময় সভায় অন্যান্যের মধ্যে ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশের যুগ্ম-মহাসচিব আমিনুল ইসলাম, দপ্তর সম্পাদক মাওলানা লোকমান হোসাইন জাফরী, ইসলামী মুক্তিযোদ্ধা পরিষদের আহ্বায়ক বীর মুক্তিযোদ্ধা আবদুল ওয়াদুদ, ইসলামী মুক্তিযোদ্ধা প্রজন্ম পরিষদ সভাপতি শহিদুল ইসলাম কবির উপস্থিত ছিলেন।

এছাড়া নাটোরের বীর মুক্তিযোদ্ধা খালেকুজ্জামান, হবিগঞ্জের বীর মুক্তিযোদ্ধা আবুল হোসেন, খুলনার বীর মুক্তিযোদ্ধা জি এম কিবরিয়া, চট্টগ্রামের সাবেক সেনাসদস্য মো. আলী, বরিশালের আলহাজ আবদুস সালাম, ফরিদপুরের বীর মুক্তিযোদ্ধা আবদুল হামিদ মাস্টার, সিলেটের মহিউদ্দীন আল মামুন, সুনামগঞ্জের নিজাম উদ্দীন, মুফতি আবদুল্লাহ আল মামুন প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন।

  • সর্বশেষ - রাজনীতি