, ১২ আষাঢ় ১৪২৯ অনলাইন সংস্করণ

বিএনপির আমলে নিউমার্কেট স্থায়ী রণক্ষেত্র ছিল: কাদের

  নিজস্ব প্রতিবেদক

  প্রকাশ : 

বিএনপির আমলে নিউমার্কেট স্থায়ী রণক্ষেত্র ছিল: কাদের

ঢাকা কলেজের শিক্ষার্থী ও নিউমার্কেটের ব্যবসায়ীদের মধ্যে সংঘর্ষের ঘটনায় সরকার ব্যবস্থা নিচ্ছে বলে জানিয়েছেন আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক এবং সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের।

তিনি বলেন, ঢাকা কলেজের শিক্ষার্থীদের সঙ্গে নিউমার্কেটের ব্যবসায়ীদের যে সংঘর্ষ হয়েছে- তাতেই যেন বাংলাদেশের আকাশ ভেঙে পড়েছে। এটা তো পার্মানেন্ট (স্থায়ী) রণক্ষেত্র হয়নি, বিএনপির আমলে যা হয়েছিল। বিএনপির আমলে তো নিউমার্কেট-এলিফ্যান্ট রোড প্রতিদিন রণক্ষেত্র ছিল।

বৃহস্পতিবার (২১ এপ্রিল) বঙ্গবন্ধু অ্যাভিনিউয়ে আওয়ামী লীগের কেন্দ্রীয় কার্যালয়ে আয়োজিত আলোচনা সভায় এসব কথা বলেন তিনি। কৃষক লীগের ৫০তম প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী উপলক্ষে এ আলোচনা সভার আয়োজন করা হয়।

এসময় বিএনপির সমালোচনার জবাবে ওবায়দুল কাদের বলেন, মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর তো ঢাকা কলেজের শিক্ষক ছিলেন। ঢাকা কলেজ তার প্রিয় কলেজ, তার কথা একটু ভাবুন। বিএনপির আমলে কী অবস্থা ছিল ঢাকা কলেজের আশেপাশের! সে অবস্থা ভুলে গেছেন? সরকার তো এখানে হস্তক্ষেপ করেছে, ব্যবস্থা নিচ্ছে।

তিনি বলেন, বাংলাদেশ সারাবিশ্বের বিস্ময়। বিশ্বব্যাংক এখন বলতে বাধ্য হয় বাংলাদেশ উন্নয়নে বিশ্বকে তাক লাগিয়ে দিয়েছে। এর ম্যাজিক হলো শেখ হাসিনার সততা। শেখ হাসিনার নেতৃত্বে বাংলাদেশ অনেক এগিয়ে গেছে। গত ১৩ বছরে বাংলাদেশের অভূতপূর্ব উন্নয়ন-অগ্রগতি হয়েছে, যা আগে কেউ ভাবেনি।

বিএনপির সমালোচনা করে আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক বলেন, সামনের নির্বাচনে কী এজেন্ডা নিয়ে মাঠে নামবে বিএনপি? তাদের এমন কোনো উন্নয়ন অগ্রগতি নেই যে মানুষের সামনে তুলে ধরবে।

বঙ্গবন্ধুর পরিবারের সুনাম নষ্ট করার জন্য বিএনপি ও তার দোসররা উঠেপড়ে লেগেছে মন্তব্য করে ওবায়দুল কাদের বলেন, দেশে-বিদেশে ষড়যন্ত্র করছে, বঙ্গবন্ধুর পরিবারের নামে অপপ্রচার করছে। বঙ্গবন্ধুর পরিবার বাংলাদেশে সততার এক অনুকরণীয় দৃষ্টান্ত। বাংলাদেশে কোনো নির্বাচন হলে শেখ হাসিনা যদি প্রার্থী হন তাহলে ৯০ শতাংশ ভোট পাবেন। বঙ্গবন্ধুর পরিবারের লোকজন সততার সঙ্গে পরিশ্রম করে জীবনযাপন করছেন। এই পরিবারের মানুষেরা কোনো ভোগ-বিলাস করেন না।

তিনি বলেন, দেশ যখন শেখ হাসিনার নেতৃত্বে উন্নয়নের মহাসড়কে তখন একটি কুচক্রী মহল ষড়যন্ত্র করছে। দেশ-বিদেশে ষড়যন্ত্র করে দেশের ভাবমূর্তি নষ্ট করছে। এমনকি বঙ্গবন্ধু পরিবারের সুনামও নষ্ট করার জন্য ষড়যন্ত্র করছে। এদের বিষয়ে দেশের জনগণকে সজাগ থাকতে হবে।

কৃষক লীগের বর্তমান কমিটিকে বাহবা দিয়ে ওবায়দুল কাদের বলেন, বর্তমান কৃষক লীগ আসলে এ সংগঠনকে প্রাণ দিয়েছে। বর্তমান কমিটি সত্যিই কৃষক লীগ। কৃষক লীগ হলো বাংলাদেশের বিশাল গ্রাম বাংলা, কৃষক লীগের ক্যানভাস হলো বাংলাদেশ।

অনুষ্ঠানে সভাপতিত্ব করেন কৃষক লীগের সভাপতি সমীর চন্দ্র। সাধারণ সম্পাদক উম্মে কুলসুম স্মৃতির সঞ্চালনায় অনুষ্ঠানে আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক এসএম কামাল হোসেন, কৃষি ও সমবায় বিষয়ক সম্পাদক ফরিদুন্নাহার লাইলীসহ কৃষক লীগের নেতাকর্মীরা উপস্থিত ছিলেন।

  • সর্বশেষ - রাজনীতি