ময়মনসিংহ, , ১১ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৭ অনলাইন সংস্করণ

করোনা: মানুষের শত্রু নাকি প্রকৃতির বন্ধু

  অনলাইন ডেস্ক

  প্রকাশ : 

করোনা: মানুষের শত্রু নাকি প্রকৃতির বন্ধু
সংগৃহীত

করোনা ভাইরাস এক ভয়াবহ মহামারীর নাম। প্রতিনিয়ত বিশ্বের বিভিন্ন দেশে হাজার হাজার মানুষের মৃত্যুর কারণ হয়ে দাঁড়িয়েছে এই সংক্রমণ ভাইরাস। বিশ্বে এ পর্যন্ত ২৭ হাজারের বেশি মানুষ মারা গেছেন করোনা ভাইরাসে। সংক্রমন হওয়ায় সামাজিক দূরত্ব তৈরি করেছে মানুষ। বেশিরভাগ মানুষই লকডাউন হয়ে ঘরে আবদ্ধ হয়ে আছে। ফলে বিশ্বের বিভিন্ন দেশে বন্ধ আছে কল-কারখানা, অফিস-আদালত। এক কথায় বলতে গেলে পৃথিবীর মানুষের অর্থনৈতিক কর্মকাণ্ডই থামিয়ে দিয়েছে করোনা ভাইরাস। আশঙ্কা করা হচ্ছে, এমনি চলতে থাকলে দুর্ভিক্ষ পর্যন্ত হতে পারে গোটা বিশ্বে। তবে করোনা ভাইরাস বিশ্বের মানব সভ্যতার জন্য হুমকি হয়ে এলেও প্রকৃতির জন্য আশীর্বাদই নিয়ে এসেছে।

সম্প্রতি ব্রিটিশ সংবাদমাধ্যম বিবিসির প্রতিবেদনে বলা হয়েছে , করোনা ভাইরাসের কারণে কলকারখানা এবং যানবাহন কম চলায় চীনে নাইট্রোজেন ডাইঅক্সাইড হ্রাস পেয়েছে। আর এ কারণে চীনের বায়ু আগের চেয়ে অনেক বিশুদ্ধ।

এছাড়াও বিভিন্ন গণমাধ্যমে পরিবেশ বিজ্ঞানীরা দাবি করছেন, পুরো বিশ্বের বায়ু আগের চেয়ে বিশুদ্ধ হয়েছে । আর যেসব দেশে করোনা ভাইরাসের সংক্রমন বেশি হয়েছে বিশেষ করে চীন এবং ইতালিতে বায়ু দূষণ পুরোপুরি থেমে গেছে। মার্কিন গণমাধ্যম সিএনবিসি দাবি করছে, বায়ূ দূষণের কারণে বিশ্বের প্রতিবছর প্রায় ৪২ লাখ মানুষ মারা যান। বিজ্ঞানীরা ধারণা করছেন, করোনা ভাইরাসে বায়ু দূষণ কমে যাওয়ায় এমন মৃত্যুর ঝুঁকি হ্রাস পাবে।

করোনা: মানুষের শত্রু নাকি প্রকৃতির বন্ধু

প্রকৃতির এমন বিশুদ্ধতায় আনন্দিতে বন্যপ্রাণীরাও। সম্প্রতি কক্সবাজারের একটি ভিডিও বেশ ভাইরাল হয়েছে যেখানে সমুদ্র সৈকতে দেখা গেছে ডলফিনের বিচরণ। পরিবেশবিদরা বলছেন , সাগরের প্রাকৃতিক পরিবেশ ডলফিনের জন্য সহায়ক ছিল না। তবে এখন সৈকত খালি হওয়াতে দূষণ কমে গেছে। অনুকূল পরিবেশ পেয়ে আবারো ফিরে আসছে ডলফিনরা। লোকজন না থাকায় ভারতেও একটি বন্য গন্ধগোকুলকে মানুষের মত করে রাস্তা পার হতে দেখা গেছে। আর বন্যপ্রাণীদের এমন আচরণে বলে দিচ্ছে করোনা মানুষের শত্রু হলেও তাদের বন্ধু হয়েই এসেছে পৃথিবীতে।


  • সর্বশেষ - করোনা আপডেট