, ১৩ আষাঢ় ১৪২৯ অনলাইন সংস্করণ

হিন্দিকে ‘পানি পুরি’ বিক্রেতাদের ভাষা বললেন ভারতীয় মন্ত্রী

  আন্তর্জাতিক ডেস্ক

  প্রকাশ : 

হিন্দিকে ‘পানি পুরি’ বিক্রেতাদের ভাষা বললেন ভারতীয় মন্ত্রী

ভারতে হিন্দি ভাষা ঘিরে ব্যাপক বিতর্ক শুরু হয়েছে। আর তিক্ত এই ভাষা বিতর্কে এবার নাম লেখালেন তামিলনাড়ুর উচ্চ শিক্ষামন্ত্রী কে পনমুডি। তামিলনাড়ুর এই মন্ত্রী হিন্দিকে ‘পানি পুরি’ বিক্রেতাদের ভাষা বলে অভিহিত করেছেন।

শুক্রবার তামিলনাড়ুর এক বিশ্ববিদ্যালয়ের সমাবর্তনে দেওয়া বক্তৃতায় বলেন, ‘কেউ কেউ বলেছেন হিন্দি শিখলে চাকরি পাবেন। আপনারা কি চাকরি পাচ্ছেন? আমাদের শহর কোয়েম্বাটুরে গিয়ে দেখেন, তারা পানি পুরি বিক্রি করছেন। তারা পানি পুরির দোকান চালান।’

তিনি বলেন, ‘ইংরেজি এখন আন্তর্জাতিক ভাষা। তামিলনাড়ুতে আমাদের নিজস্ব ব্যবস্থা থাকা উচিত। তামিলনাড়ুর স্থানীয় ভাষা তামিল। আমাদের কাছে ইংরেজি আন্তর্জাতিক ভাষা। বৈচিত্র্যতার মধ্যে ভিন্ন ভিন্ন সংস্কৃতি ও ভাষার ঐক্য রয়েছে। তামিলনাড়ুতে আমাদের নিজেদের শিক্ষা ব্যবস্থা মেনে চলা উচিত। আমরা নতুন শিক্ষানীতিতে কিছু নতুন ভালো নীতিও অনুসরণ করছি। এবং আমরা তা অনুসরণ করতে প্রস্তুত।’

হিন্দি ভাষা তামিলনাড়ুর জনগণের ওপর চাপিয়ে দেওয়ার বিরুদ্ধে সেখানকার ক্ষমতাসীন রাজনৈতিক দল ডিএমকের অবস্থানের পুনরাবৃত্তি করে তিনি বলেন, রাজ্য সরকার নীতি হিসেবে দ্বি-ভাষা ফরমুলা অব্যাহত রাখবে এবং হিন্দি চাপিয়ে দেওয়ার যে কোনও প্রচেষ্টার নিন্দা জানান তিনি।

ভারতিয়ার বিশ্ববিদ্যালয়ের চ্যান্সেলর তামিলনাড়ুর রাজ্যপাল আর এন রবি সমাবর্তন অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন। রাজ্যের জনগণের ওপর হিন্দি চাপিয়ে দেওয়ার অভিযোগ প্রত্যাখ্যান করে তিনি বলেন, এখানে কারও ওপর হিন্দি বা অন্য কোনও ভাষা চাপিয়ে দেওয়ার প্রশ্নই ওঠে না।

শিক্ষামন্ত্রী কে পনমুডি বলেন, তিনি ভাষা ইস্যুতে তামিলনাড়ুর অনুভূতি তুলে ধরতে সমাবর্তন প্ল্যাটফর্ম ব্যবহার করছেন। কারণ রাজ্যপাল এসব তথ্য কেন্দ্রের কাছে পৌঁছে দেবেন। রাজ্যের শিক্ষার্থীরা যেকোনও ভাষা স্বাধীনভাবে শিখতে পারেন। তারা হিন্দিসহ অন্যান্য ভাষার বিরুদ্ধে নন বলেও জানান তিনি।

  • সর্বশেষ - আন্তর্জাতিক