, ১৪ আশ্বিন ১৪২৯ অনলাইন সংস্করণ

বসুন্ধরার আবেদন নাকচ ফেডারেশনের

  স্পোর্টস ডেস্ক

  প্রকাশ : 

বসুন্ধরার আবেদন নাকচ ফেডারেশনের

এক ম্যাচ আগে থাকতে লিগের ট্রফি দেওয়ার জন্য বাফুফের কাছে আবদার করেছিল বসুন্ধরা কিংস। বাংলাদেশ প্রিমিয়ার লিগ চ্যাম্পিয়নদের আবেদনে বাফুফে সায় দেয়নি। নীতি অনুসরণ করে লিগের শেষ ম্যাচেই ট্রফি প্রদান করবে দেশের ফুটবলে সর্বোচ্চ নিয়ন্ত্রক সংস্থা।

আজ রবিবার (২৪ জুলাই) বাফুফে সাধারণ সম্পাদক আবু নাইম সোহাগ কিংসের আবেদন ও ট্রফি প্রদান সম্পর্কে বলেন, ‘কিংসের আবেদন পাওয়ার পর বিষয়টি নিয়ে আমরা আলোচনা করেছি। বাফুফে নীতিগতভাবে সিদ্ধান্ত নিয়েছে বিগত সময়ের মতো এবারও শেষ ম্যাচেই চ্যাম্পিয়ন ও রানার্স আপ ট্রফি হস্তান্তর করা হবে। বসুন্ধরা কিংস ও ঢাকা আবাহনীকে সেভাবে অবহিত করা হয়েছে।’

আবাহনী ম্যাচে ট্রফি না পেলে বসুন্ধরা কিংস তা গ্রহণ করবে না বলে চিঠিতে উল্লেখ করেছিল। তবুও বাফুফে তাদের অবস্থানে অনড়। এই পরিস্থিতিতে কিংসের মাঠেই ট্রফি নেওয়ার আরেকটি উপলক্ষ্য তৈরি করছে শেখ জামাল। বসুন্ধরা কিংসের শেষ ম্যাচ শেখ জামালের বিপক্ষে মুন্সিগঞ্জ স্টেডিয়ামে। ওই ম্যাচের স্বাগতিক জামাল ফেডারেশনকে চিঠি দিয়ে জানিয়েছে তারা এই ম্যাচটি নিজেদের হোমে না খেলে বসুন্ধরায় খেলতে চায়। এই বিষয়ে ফেডারেশনের সাধারণ সম্পাদক বলেন, ‘শেষ রাউন্ডের ফিকশ্চার নিয়ে আমরা কাজ করছি। সেই সময় জামালের আবেদন নিয়ে আলোচনা হবে।’ সাধারণত হোম ভেন্যুতে খেলা আয়োজনে সমস্যা হলে তখন নিরপেক্ষ ভেন্যুতে খেলা হয়। এক্ষেত্রে জামাল উল্টো প্রতিপক্ষের ভেন্যুতে খেলতে চাইছে। 

আগামীকাল সোমবার (২৫ জুলাই) শুরু হচ্ছে লিগের ২১তম রাউন্ড। চ্যাম্পিয়ন ও রানার্স আপ নিষ্পত্তি হলেও কোন দুই দল রেলিগেশনে যাবে সেটি এখনো অনিশ্চিত। এই রাউন্ডে স্বাধীনতা হারলে তাদের রেলিগেশন নিশ্চিত হবে। আরেকটি দল কোনটি সেটার জন্য অপেক্ষা করতে হতে পারে শেষ রাউন্ডের জন্য। এজন্য বাফুফে শেষ রাউন্ডের সূচি প্রকাশে সময় নিচ্ছে, ‘শেষ রাউন্ডে অনেক হিসাব নিকাশ থাকে। কোন দল যাতে বাড়তি সুবিধা বা বঞ্চিত না হয় এজন্য আমরা একই সময়ে শেষ রাউন্ডের খেলা দেয়ার পরিকল্পনা করছি। এতে একই দিন কয়েকটি ম্যাচ হতে পারে। এজন্য শেষ রাউন্ডের ফিকশ্চার দিতে কিছুটা সময় লাগছে।’

  • সর্বশেষ - খেলাধুলা