, ২৬ মাঘ ১৪২৯ অনলাইন সংস্করণ

আব্দুল্লাহ জুবায়েরের একগুচ্ছ কবিতা

  সাহিত্য ডেস্ক

  প্রকাশ : 

আব্দুল্লাহ জুবায়েরের একগুচ্ছ কবিতা

তোমার আমন্ত্রণ

যদি থাকো তুমি দূরে
তৃষ্ণা আরও বাড়ে
হৃদয়জুড়ে শূন্যতা
পূর্ণতা তোমায় ঘিরে

স্বপ্নের ডাকবাক্সে
পত্র তোমার নামে
জমিয়ে রাখা কথা
জমা আছে তাতে

নিমন্ত্রণের ভাষা সব
তোমার আমন্ত্রণে
দীর্ঘশ্বাস ছেড়ে বলে
ফিরেছি আপন নীড়ে।

****

তোমার ঘোরে

তুমি প্রাণভরে নিশ্বাস ছেড়ো,
আমি তোমার ঘ্রাণ শুকবো।

তুমি অপ্রয়োজনে কেঁদো,
আমি তোমার আঁখির জল স্পর্শে
স্নিগ্ধ শিশিরের অনুভূতি নেবো।

তুমি ইচ্ছের বাইরেও হেসো,
আমি পৃথিবীর সুন্দরতম দৃশ্য দেখবো।

তুমি নূপুর পায়ে হেঁটো,
আমি নৈঃসর্গিক শ্রুতিমধুর
ধ্বনি অনুধাবন করবো।

তুমি রূপকথার রানি হয়ে সেজো,
আমি স্বর্গের মৃত্তিকা খুঁজে পাবো।

তুমি অকারণে অভিমান করো,
আমি অভিমান ভাঙাতে
তোমায় ভালোবাসি বলবো।

****

নিখোঁজ সত্তা

সমাপ্তির পূর্বে অপ্রাপ্তির ভিড়ে নিজেকে হারিয়ে শান্তির খোঁজ।

গল্পের প্রারম্ভে যোগ-বিয়োগটা আত্মস্থ করলেও
হঠাৎই মধ্যাহ্নে এসে ফলাফল মেলাতে হিমশিম।

আত্মতৃপ্তির অভাবে স্বকর্মের প্রতি বিরাগ
দিশাহারা প্রশান্তির দেখা পেতে।

ভাবনার জগতে উত্তাল সামুদ্রিক ঢেউ, কপালে চিন্তার ভাঁজ।

কখনো প্রিয় নীড়ের সর্বক্ষণের সঙ্গীদ্বয়,
কখনো সমাজের দুষ্টু ব্যক্তিদের দৃষ্টি,
কখনো স্বইচ্ছাদের বিপরীতমুখী ভূমিকা,
কখনো বা কালো হৃদয়ের অধিকারী মানুষের কটুবাক্য।

জীবনের এক অন্তিম বেলায় অদৃশ্য অগ্নিতাপে পুড়ছে পবিত্র হৃদয়।

সমাপ্তির পূর্বে অপ্রাপ্তির ভিড়ে নিজেকে হারিয়ে
শান্তির খোঁজ যেন মানসিক রোগীর ন্যায়।

  • সর্বশেষ - সাহিত্য