, ২৬ মাঘ ১৪২৯ অনলাইন সংস্করণ

নানা আয়োজনে নেত্রকোণায় কবি হেলাল হাফিজের জন্মদিন পালন

  নিজস্ব প্রতিবেদক

  প্রকাশ : 

নানা আয়োজনে নেত্রকোণায় কবি হেলাল হাফিজের জন্মদিন পালন

বাংলা সাহিত্যের অন্যতম জনপ্রিয় কবি হেলাল হাফিজ। আজ তার ৭৫তম জন্মদিন। ১৯৪৮ সালের ৭ অক্টোবর নেত্রকোণায় জন্মগ্রহণ করেন তিনি। কবির ৭৫তম জন্মদিন উপলক্ষে নিজ জেলা নেত্রকোণায় কেক কাটা, কথা, গান, কবিতা আবৃত্তিসহ নানা কর্মসূচি পালন করা হয়েছে। 

শুক্রবার (০৭ অক্টোবর) সকাল থেকে দুপুর পর্যন্ত কবির শৈশবের বিদ্যাপীঠ জেলা শহরের দত্ত উচ্চ বিদ্যালয় প্রাঙ্গণে স্বেচ্ছাসেবী সংগঠন হিমু পাঠক আড্ডার উদ্যোগে এসব কর্মসূচির পালন করা হয়।

দত্ত উচ্চ বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক এবিএম শাহজাহান কবীর সাজুর সভাপতিত্বে ও হিমু পাঠক আড্ডার প্রতিষ্ঠাতা সাংবাদিক আলপনা বেগমের পরিচালনায় অনুষ্ঠানে অসুস্থ কবি হেলাল হাফিজের রোগমুক্তি কামনা করে কবির বর্ণাঢ্য জীবন ও কর্মের ওপর বক্তব্য দেন, অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (অপরাধ) হারুনুর রশিদ, কবির বন্ধু বীর মুক্তিযোদ্ধা হায়দার জাহান চৌধুরী, সাংবাদিক ও ছড়াকার শ্যামলেন্দু পাল, উদীচী শিল্পীগোষ্ঠীর সভাপতি মোস্তাফিজুর রহমান, কবি তানভীর জাহান চৌধুরী প্রমুখ। 

অনুষ্ঠানে কবির বন্ধু হায়দার জাহান চৌধুরীর হাতে ফুলের তোড়া দিয়ে কবি হেলাল হাফিজকে অভ্যর্থনা জানান নেত্রকোণা জেলা পুলিশের পক্ষে অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (প্রশাসন) ফখরুজ্জামান জুয়েল। অনুষ্ঠানের ফাঁকে ফাঁকে সংগীত পরিবেশন ও কবিতা আবৃত্তি করেন স্থানীয় সংস্কৃতিকর্মীরা।

dhakapost

শেষে কবির ৭৫তম জন্মদিনের কেক কাটেন অনুষ্ঠানের অতিথিবৃন্দসহ হিমু পাঠক আড্ডার সদস্য ও উপস্থিত সাংস্কৃতিকর্মী এবং কোমলমতি শিশুরা।

কবি হেলাল হাফিজ ১৯৪৮ সালের ৭ অক্টোবর নেত্রকোণা জেলা শহরে জন্মগ্রহণ করেন। কবির পৈত্রিক নিবাস জেলার আটপাড়া উপজেলার তেলিগাতী ইউনিয়নের বড়তলী গ্রামে। তার বাবা খোরশেদ আলী তালুকদার জেলা শহরের একজন জনপ্রিয় শিক্ষক ছিলেন। কবির মায়ের নাম কোকিলা বেগম। মাত্র তিন বছর বয়সে মাকে হারান তিনি। মূলত মাতৃবিয়োগের বেদনা থেকেই তিনি কবিতায় ঝুঁকে পড়েন। তারপর একে একে রচনা করেন কালজয়ী সব কবিতা। ‘যে জলে আগুন জ্বলে’ কবি হেলাল হাফিজের খুবই জনপ্রিয় একটি কাব্যগ্রন্থ। গ্রন্থটি বিভিন্ন ভাষায় অনুদিত হয়েছে। 

ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের ছাত্র থাকা অবস্থায় তিনি ১৯৭২ সালে সাংবাদিকতা শুরু করেন। এরপর কবি বিভিন্ন পত্রিকায় চাকরি করেন। কবিতায় ২০১৩ সালে তিনি বাংলা একাডেমি পুরস্কার লাভ করেন। এছাড়া খালেকদাদ চৌধুরী পুরস্কার, ময়মনসিংহ প্রেসক্লাব সাহিত্য পদকসহ বিভিন্ন পুরস্কারে ভূষিত হয়েছেন এই কবি। বর্তমানে তিনি অসুস্থতাজনিত কারণে বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিকেল বিশ্ববিদ্যালয় হাসপাতালে চিকিৎসাধীন রয়েছেন।

  • সর্বশেষ - সারাদেশ