ময়মনসিংহ, , ২৬ আষাঢ় ১৪২৭ অনলাইন সংস্করণ

নেত্রকোনায় একদিনে ৪৪ জন করোনায় আক্রান্ত, অধিকাংশ গার্মেন্টসকর্মী

নেত্রকোনায় একদিনে ৪৪ জন করোনায় আক্রান্ত, অধিকাংশ গার্মেন্টসকর্মী

প্রতীকী ছবি

গত ২৪ ঘণ্টায় নেত্রকোনায় নতুন করে আরও ৪৪ জনের শরীরে করোনাভাইরাসের সংক্রমণ শনাক্ত হয়েছে। নতুন আক্রান্তদের মধ্যে নেত্রকোনা সদরে ৩০, পূর্বধলায় ১০, দুর্গাপুরে দুই, আটপাড়ায় এক ও মোহনগঞ্জে একজন। ৪৪ জন নিয়ে জেলায় করোনা আক্রান্তের সংখ্যা দাঁড়াল ১৬৮ জনে।


নেত্রকোনা সিভিল সার্জনের কাযালয় সূত্রে জানা গেছে, জেলায় প্রথম করোনাভাইরাসে আক্রান্ত রোগী শনাক্ত হয় ১০ এপ্রিল। শনিবার রাত পর্যন্ত এক মাস ছয়দিনের ব্যবধানে জেলায় শনাক্ত হয়েছেন ১১১ জন। এ পর্যন্ত মারা গেছেন মোহনগঞ্জে একজন (পুরুষ-৫৬) ও মদনে একজন (নারী-৬০)।


জেলা স্বাস্থ্য বিভাগের তথ্যমতে, এ নিয়ে জেলায় মোট আক্রান্ত হয়েছেন ১৬৮ জন। মোট ২৭১১ জনের নমুনা সংগ্রহ করা হয়েছে। এর মধ্যে ২৫৫১ জনের নমুনা পরীক্ষা করা হলে জেলায় ১৬৬ জনের কোভিড-১৯ ধরা পড়ে। ১৬০ জনের নমুনা পরীক্ষা এখনও বাকি রয়েছে। আক্রান্তদের মধ্যে ৪৭ জন সুস্থ হয়েছেন। ময়মনসিংহ মেডিকেল কলেজের মাইক্রোবায়োলজি বিভাগের ল্যাবে পরীক্ষায় ওই লোকজনের শরীরে কোভিড-১৯ ধরা পড়ে।


স্থানীয় সূত্র জানায়, জেলায় আক্রান্তের হার বৃদ্ধির পেছনে গ্রামে ফেরত লোকজনের ভূমিকা বেশি। আক্রান্তদের তথ্য বিশ্লেষণ করে দেখা গেছে, আক্রান্তদের ৬০ ভাগই নারায়ণগঞ্জ, ঢাকাসহ বিভিন্ন জেলা থেকে ফেরা পোশাক শ্রমিক। বাকিরা তাদের সংস্পর্শে আসা ব্যক্তি।


জেলা সিভিল সার্জন মো. তাজুল ইসলাম বলেন, নেত্রকোনায় একদিনে ৪৪ জনের করেনা শনাক্ত হয়েছে। জেলায় এক দিনে এটিই সবচেয়ে বেশি শনাক্তের সংখ্যা। জেলায় এ পর্যন্ত ১৬৮ জনের শরীরে করোনা শনাক্ত হয়েছে। তাদের মধ্যে অবশ্য ৪৭ জন সুস্থ হয়ে স্বাভাবিক জীবনে ফিরেছেন। আর দুইজন মারা গেছেন।

  • সর্বশেষ - মহানগর