ময়মনসিংহ, , ৩০ শ্রাবণ ১৪২৭ অনলাইন সংস্করণ

৪ বছরে হেঁটে মক্কায় এসেও হজ করতে পারেনি ইয়াসিন!

  ধর্ম ডেস্ক

  প্রকাশ : 

৪ বছরে হেঁটে মক্কায় এসেও হজ করতে পারেনি ইয়াসিন!

পায়ে হেঁটে ও সাইকেল চালিয়ে দীর্ঘ ৪ বছরে পবিত্র নগরী মক্কায় এসে পৌছেছেন উত্তর আফ্রিকার দেশ মরক্কোর তরুণ গোলাম ইয়াসিন। উদ্দেশ্য পবিত্র নগরী মক্কায় এসে ওমরাহ ও হজ পালন করবেন। গত ৭ মাস আগে মক্কায় এসে ওমরাহ করলেও শারীরিক সুস্থতার কথা বিবেচনায় হজ করেননি মরক্কোর তরুণ ইয়াসিন। খবর আরব নিউজ।


বয়সে তরুণ মরক্কোর গোলাম ইয়াসিন। ২০১৭ সালে রওনা হয়ে চার বছর ধরে পায়ে হেঁটে এবং সাইকেল চালিয়ে গত সাত মাস আগে সৌদি আরবের পবিত্র নগরী মক্কায় পৌঁছেছেন। এ দীর্ঘ ভ্রমণে নিজের সঙ্গে বহন করেছেন প্রয়োজনীয় সব জিনিস।



ইয়াসিন দীর্ঘ এ ভ্রমণে ২৮টি দেশ অতিক্রম করেন। সাত মাস আগে পবিত্র নগরী মক্কায় এসেই পবিত্র ওমরাহ পালন করেন। ওমরাহ পালন করে তিনি পবিত্র নগরী মদিনা মুনাওয়ারাহ জেয়ারত করেন। বর্তমানে তিনি দেশটির দক্ষিণাঞ্চলীয় শহর আভায় অবস্থান করছেন।


প্রাণঘাতী বৈশ্বিক মহামারি করোনাভাইরাসের প্রাদুর্ভাবের কারণে সীমিত পরিসরে স্বল্প সংখ্যক লোক নিয়ে অনুষ্ঠিত হয়েছে হজ। দেশটিতে অবস্থানকারীদের মধ্যে অনুমতি প্রাপ্তরাই এবারের হজে অংশগ্রহণে সক্ষম হয়েছেন।


গোলাম ইয়াসিন মহামারি করোনা সংক্রমণের আগেই সৌদি আরবে পৌঁছলেও তিনি স্বাস্থ্যগত কারণে এবারের হজে অংশগ্রহণ করেননি। ইয়াসিন বলেন, 'আমি ৪ বছর ধরে সাইকেল চালিয়ে, পায়ে হেঁটে পবিত্র নগরী মক্কা পৌঁছেছি। যাতে আমি হজ আদায় করতে পারি।'


সৌদি আরবের মিডিয়ার ব্যক্তিত্ব আব্দুর রহমান আল-মুতাইরি মরক্কোর এ ভ্রমণকারী ইয়াসিনকে স্বাগত জানাতে আভায় গমন করেন। যেখানে মরক্কোর এ ভ্রমণকারী ইয়াসিন অবস্থান করছেন। সেখানে গিয়ে তিনি ইয়াসিনকে স্বাগত জানান এবং তার ভ্রমণের গল্প শেয়ার করেন।


তবে মহামারি করোনায় স্বাস্থ্য সুরক্ষার জন্য এবার হাজিদের সংখ্যা সীমিত করা হয়েছে। ফলে ইয়াসিন এবার হজ না করে আভাতেই অবস্থানের সিদ্ধান্ত নেন। আভার সুন্দর আবহাওয়া বেশ উপভোগ করছেন ইয়াসিন। ইয়াসিনের ভাষায়, 'এত সুন্দর আবাহ, আমি বেশ উপভোগ করছি। আমি কখনো কল্পনাই করিনি এখানকার পরিবেশ এত দারুণ।'


মরক্কোর এ তরুণ পবিত্র নগরী মক্কায় ওমরাহ সম্পন্ন করে পায়ে হেঁটে পবিত্র নগরী মদিনায় গমন করেন। আর করোনা সংক্রমণের আগেই পায়ে হেঁটে মক্কা থেকে মদিনার পথ পাড়ি দেন এবং মদিনা জেয়ারত সম্পন্ন করেন।


ইয়াসিন জানায়, 'আমি (হিজরতের স্মৃতিতে) হজরত মুহাম্মদ সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লামের যাত্রা অনুসরণ করে মক্কা থেকে মদিনায় পায়ে হেঁটে গিয়েছি।'


মিডিয়া ব্যক্তিত্ব আব্দুল রহমান আল-মুতাইরির মাধ্যমে উঠে আসে ইয়াসিনের পুরো ভ্রমণ কাহিনী। আল মুতাইরি গ্রুপের বিপুল অভ্যর্থনায় আবেগাপ্লুত হয়ে পড়েন ইয়াসিন। সৌদি মিডিয়া ব্যক্তিত্বের গ্রুপটি আগামী বছর তাকে হজের জন্য আমন্ত্রণ জানায় এবং তার পুরো খরচ বহনের ঘোষণা দেয়।


আল-মুতাইরি বলেন, 'আমরা আপনার (ইয়াসিন) সঙ্গে দেখা করতে আল-কাসিম থেকে এসেছি। আপনি আমাদের অতিথি এবং সৌদি আরবের প্রতিটি বাড়ির অতিথি। আমরা আপনাকে পেয়ে খুব খুশি।’ মরোক্কোর এই তরুণ জানান, ’সৌদি আরবের আতিথিয়তায় তিনি মুগ্ধ। প্রতিদিন তাকে কেউ না কেউ আপন করে নিচ্ছেন।’


ইয়াসিনের দীর্ঘ পথের ভ্রমণকাহিনীর বিষয়টি কেমন ছিল তা দেখতে মিডিয়া ব্যক্তি আব্দুর রহমান আল-মুতাইরি ইয়াসিনের সাইকেলসহ ২৬ কেজি ওজনের ব্যাগপ্যাক, ঘুমানোর বহনযোগ্য বেড, রান্নার সামগ্রীগুলো তার গাড়ির পেছনে উঠিয়ে ঘুরেছেন। দেখেছেন কিভাবে এ দীর্ঘ পথ অতিক্রম করেছেন ইয়াসিন।


এ মিডিয়া গ্রুপের তত্ত্বাবধানেই আগামী বছর হজে অংশগ্রহণ করবেন মরক্কোর তরুণ গোলাম ইয়াসিন। ইয়াসিনের প্রতি শুভ কামান...

  • সর্বশেষ - অতিথি কলাম