ময়মনসিংহ, , ৮ বৈশাখ ১৪২৮ অনলাইন সংস্করণ

জয়পুরহাটে বাস-ট্রেনের ভয়াবহ সংঘর্ষ, নিহত বেড়ে ১২

  নিজস্ব প্রতিবেদক

  প্রকাশ : 

জয়পুরহাটে বাস-ট্রেনের ভয়াবহ সংঘর্ষ, নিহত বেড়ে ১২
ছবি : সংগৃহীত

জয়পুরহাট সদর উপজেলার পুরানাপৈল রেল গেট এলাকায় বাস-ট্রেনের সংঘর্ষে নিহত হয়েছেন ১২ জন ও আহত হয়েছেন আরও তিনজন।

শনিবার (১৯ ডিসেম্বর) সকাল ৭টার দিকে এ দুর্ঘটনা ঘটে।

প্রত্যক্ষদর্শীরা জানান, জয়পুরহাট থেকে ছেড়ে আসা বাধন নামের একটি বাস হিলি স্থল বন্দরের দিকে যাচ্ছিল। জয়পুরহাট সদর উপজেলার পুরানাপৈল রেলগেট অতিক্রম করার সময় গেটম্যান গেট না ফেলার কারণে বাসটি রেললাইনের উপর উঠে যায়। সেসময় রাজশাহীগামী উত্তরা এক্সপ্রেস ট্রেন বাসটিকে সজোরে ধাক্কা দেয়। ট্রেনটি রেললাইন ধরে বাসটিকে প্রায় আধ কিলোমিটার টেনে নিয়ে যায়। এ সময় বাসে থাকা ১০ জন যাত্রী ঘটনাস্থলেই নিহত হন। আহত হন আরো পাঁচজন।

খবর পেয়ে জয়পুরহাট ও পাঁচবিবি ফায়ার সার্ভিস স্টেশনের সদস্যরা হতাহতদের উদ্ধার করে জয়পুরহাট জেলা আধুনিক হাসপাতালে ভর্তি করেছে।

নিহতদের মধ্যে ছয়জনের পরিচয় পাওয়া গেছে। তারা হলেন- বাস চালক সদর উপজেলার হারাইল গ্রামের মামুনুর রশিদ, হিচমী গ্রামের মানিকের ছেলে রমজান, পাঁচবিবি উপজেলার আটুল গ্রামের সরোয়ার হোসেন, আরিফুর রহমান রাব্বি, আক্কেলপুর উপজেলার চকবিলা গ্রামের দুদু কাজীর ছেলে সাজু মিয়া ও নওগাঁর রানী নগর উপজেলার বিজয়কান্দি গ্রামের বাবু।

joypurhat1

আহত তিনজনের হলেন- পাঁচবিবি উপজেলার ফারুখ হোসেন, একই উপজেলার সিরাজুল ইসলামের ছেলে জিয়া, টাঙ্গাইলের মাটিকাটা গ্রামের শুকুর আলীর জুলহাস।

জয়পুরহাট জেলার অতিরিক্ত পুলিশ সুপার তরিকুল ইসলাম ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করেন।

তিনি জানান, আহতদের উদ্ধার করে জয়পুরহাট জেলা আধুনিক হাসপাতালে ভর্তি করানো হয়েছে।

জয়পুরহাট জেলা আধুনিক হাসপাতালের আবাসিক চিকিৎসক সাইফুল ইসলাম জানান, ১০ জনের লাশ মর্গে আছে। আহত পাঁচজনকে বগুড়া শহীদ জিয়া মেডিকেল হাসপাতালে স্থানান্তর করার পথে দুইজনের মৃত্যু হয়েছে।

পাবর্তীপুর রেললাইনের পুলিশ সুপার সিদ্দীকি তানজিলুর রহমান বলেন, গেটম্যান না থাকার কারণে এ ঘটনা ঘটেছে তবে তদন্ত করার পর আসল ঘটনা জানা যাবে।

  • সর্বশেষ - সারাদেশ