, ৯ বৈশাখ ১৪৩১ অনলাইন সংস্করণ

নাফ নদীতে পাচারকালে সাড়ে ৬ কোটি টাকার মাদক উদ্ধার

  নিজস্ব প্রতিবেদক

  প্রকাশ : 

নাফ নদীতে পাচারকালে সাড়ে ৬ কোটি টাকার মাদক উদ্ধার

নাফ নদীতে অভিযান চালিয়ে এক কেজি ক্রিস্টাল মেথ (আইস) ও ৪০ হাজার পিস ইয়াবা উদ্ধার করেছে টেকনাফ ব্যাটালিয়ন-২ বিজিবি সদস্যরা। জব্দকৃত মাদকের মূল্য প্রায় ছয় কোটি ৪০ লাখ ৩৫ হাজার টাকা বলে নিশ্চিত করেছেন টেকনাফ ব্যাটালিয়ন ২ বিজিবি অধিনায়ক লে. কর্নেল শেখ খালিদ মোহাম্মদ ইফতেখার।

বৃহস্পতিবার (২৮ এপ্রিল) ভোরে বাংলাদেশ মিয়ানমার সীমান্তবর্তী টেকনাফের জালিয়ারদ্বীপে এ অভিযান পরিচালনা করা হয়। এ সময় টেকনাফ রোহিঙ্গা ক্যাম্পে বসবাসকারী মো. সিরাজুল ইসলাম (২৮) ও সৈয়দ সালাম (৩৮) নামে দুই রোহিঙ্গা নাগরিককে আটক করা হয়েছে।

লে. কর্নেল শেখ খালিদ মোহাম্মদ ইফতেখার জানান, গোপন সংবাদের ভিত্তিতে জানা যায় বুধবার রাতে টেকনাফ দমদমিয়া বিওপির উত্তর-পূর্ব দিকে জালিয়ারদ্বীপ এলাকার পার্শ্ববর্তী নাফ নদীর সীমান্ত দিয়ে মাদকের একটি চালান মিয়ানমার থেকে বাংলাদেশে পাচার হতে পারে। উক্ত সংবাদের ভিত্তিতে টেকনাফ ব্যাটালিয়ন সদর থেকে একটি বিশেষ টহল নাফ নদীর জালিয়ারদ্বীপের কেওড়া বাগানে কৌশলগত অবস্থান গ্রহণ করে।

আনুমানিক রাত ১টার সময় বিজিবি টহলদল একজন ব্যক্তিকে জালিয়ারদ্বীপের পাশে নাফ নদীতে ছদ্মবেশ ধারণ করে কাঠের নৌকায় করে জাল দিয়ে মাছ ধরতে দেখতে পায়। এ সময় টহলদল মিয়ানমার থেকে একজন চোরাকারবারীকে সাঁতরিয়ে নাফ নদী পার হয়ে বাংলাদেশের অভ্যন্তরে জালিয়ারদ্বীপে মাছ ধরারত ওই জেলের কাছে এসে একটি বস্তা হস্তান্তর করলে পূর্ব থেকেই অবস্থানে থাকা বিজিবি টহলদল চারিদিক থেকে স্পিডবোটের মাধ্যমে ঘেরাও করে দুজনকে আটক করে।

পরে তাদের কাছ থেকে ১টি বস্তা জব্দ করে। ওই বস্তা থেকে এক কেজি চল্লিশ গ্রাম ক্রিস্টাল মেথ (আইস) ও চল্লিশ হাজার পিস ইয়াবা উদ্ধার করা হয়। আটক আসামিদের বিরুদ্ধে মামলা দিয়ে টেকনাফ মডেল থানায় হস্তান্তর করা হয়েছে।

  • সর্বশেষ - সারাদেশ