, ১০ বৈশাখ ১৪৩১ অনলাইন সংস্করণ

শ্রীপুরে মোটরসাইকেলের মহড়া থেকে দুই বাড়িতে গুলি

  নিজস্ব প্রতিবেদক

  প্রকাশ : 

শ্রীপুরে মোটরসাইকেলের মহড়া থেকে দুই বাড়িতে গুলি

গাজীপুরের শ্রীপুর পৌর আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক নুরে আলম মোল্লার বাড়িতে গুলি ও আগুনের ঘটনার রেশ কাটতে না কাটতেই মোটরসাইকেল মহড়া থেকে আরও দুই বাড়িতে গুলি ছুড়েছে দুর্বৃত্তরা। এসময় দেশী অস্ত্রের মহড়া দেওয়ার ঘটনা ঘটেছে। এ ঘটনায় এলাকায় সাধারণ মানুষের মধ্যে আতঙ্ক ছড়িয়ে পড়েছে।

মঙ্গলবার (৬ ফেব্রুয়ারি) সন্ধ্যা ৭টার দিকে শ্রীপুর উপজেলার তেলিহাটি ইউনিয়নের মুলাইদ গ্রামের শফিক মোড় এলাকায় এ গুলির ঘটনা ঘটে। এসময় দুর্বৃত্তদের ছোড়া গুলিতে ওই এলাকার সৌদিপ্রবাসী মাহবুব আলমের ফ্ল্যাটে জানালার কাচ ছিদ্র হয়ে যায় এবং অপর গুলি একই এলাকার কলেজ শিক্ষক শিপুল খন্দকারের ভাড়া বাড়ির জানালার গ্লাস ছিদ্র হয়ে যায়। ইতিমধ্যে মোটরসাইকেল মহড়ার একটি সিসিটিভি ক্যামেরার ফুটেজ সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ছড়িয়ে পড়ছে।

ছড়িয়ে পড়া সিসিটিভি ক্যামেরার ফুটেজে দেখা যায়, ২১টি মোটরসাইকেলযোগে ৫০ থেকে ৬০ জন উঠতি বয়সী যুবক, তরুণ ও কিশোর জরুরী সাইরেন বাজিয়ে মুলাইদ গ্রামের শফিক মোড় সড়কে মহড়া দিচ্ছে। প্রতিটি মোটর সাইকেল আরোহীর হাতে রাম দা, হকিস্টিক, লাঠি সদৃশ্য। প্রবাসী মাহবুব আলমের শ্যালক জাকুয়ান খন্দকার জানান, মঙ্গলবার সন্ধ্যা পৌনে ৭টার দিকে মুলাইদ-শফিক মোড় সড়কে ২০ থেকে ২২টি মোটরসাইকেলযোগে প্রায় ৫০ জন যুবক, তরুণ ও কিশোর হঠাৎ মহড়া দেয়। ওই মহড়া থেকে প্রথমে তাঁর ভগ্নিপতির বাসায় এক রাউন্ড গুলি ছোড়া হয়। গুলিটি ফ্ল্যাটের জানালার কাঁচ ভেদ করে ঢুকে যায়। তবে এতে কেউ হতাহত হয়নি।

সামান্য দূরে বাড়ি তৈরী করে ভাড়া দিয়েছেন শ্রীপুর মুক্তিযোদ্ধা রহমত আলী বিশ্ববিদ্যালয় কলেজের প্রভাষক শিপুল খন্দকার। তিনি বলেন, আমি কয়েকটি বাড়ি তৈরী করে ভাড়া দিয়েছি। মঙ্গলবার ৭টার কিছু সময় আগে ওই মোটরসাইকেল মহড়া থেকে সড়কের পাশে ভাড়াটিয়ার ঘরের জানালায় এক রাউন্ড গুলি করা হয়। এতে জানালার থাই গ্লাস ভেঙে যায়।

সৌদি প্রবাসী মাহবুব আলমের স্ত্রী ফারজানা আক্তার লাকি বলেন, আমার স্বামী সৌদি আরব থাকেন। কোন রাজনীতির সঙ্গে যুক্ত নয়। আমার ১৪ বছর বয়সী মহনা, ৮ বছর বয়সী জারান এবং বৃদ্ধা শাশুড়ি সুফিয়াকে নিয়ে থাকি। হঠাৎ করে বিকট শব্দ হওয়ার পরপরই জানালার গ্লাসের অংশ আমার মুখের উপর পড়ে। এরপর বুঝতে পারি গুলি করা হয়েছে। তবে কি কারণে গুলি করা হয়েছে তা বলতে পারবো না।

কলেজ শিক্ষক শিপুল খন্দকারের ভাড়াটিয়া আবু তাহাবী বলেন, আমার স্ত্রী অসুস্থ বাসায় শুয়ে ছিলেন। হঠাৎ করে বিকট শব্দ হলে আমাকে ফোন দেয়। আমি বাসায় গিয়ে দেখি জানালার গ্লাস ফেটে গেছে। এরপর বিষয়টি বাসার মালিককে অবহিত করি। শ্রীপুর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মোহাম্মদ শাহ্ জামান রাতেই ঘটনাস্থল পরিদর্শন করে বলেন, ঘটনাস্থলে এসব বিষয়ে তদন্ত চলছে। তদন্ত শেষে আইনগত ব্যবস্থা নেয়া হবে।

  • সর্বশেষ - মিডিয়া