ময়মনসিংহ, , ২৭ শ্রাবণ ১৪২৭ অনলাইন সংস্করণ

হত্যার একদিন পরও বাংলাদেশির লাশ ফেরত দেয়নি বিএসএফ

হত্যার একদিন পরও বাংলাদেশির লাশ ফেরত দেয়নি বিএসএফ

ফাইল ছবি

ময়মনসিংহের হালুয়াঘাটের গোবড়াকুড়া সীমান্তের দুইশ গজ ভেতরে ভারতীয় সীমান্তরক্ষী বাহিনীর (বিএসএফ) গুলিতে অজ্ঞাত পরিচয়ের এক বাংলাদেশি নিহত হয়েছে। মঙ্গলবার (২৩ জুলাই) ভোরে বিএসএফের গুলিতে তিনি মারা যান।


উপজেলার সীমান্তবর্তী গোবড়াকুড়া এলাকার খলিল নামে এক ব্যক্তি জানান, আব্দুল জলিল (২৬) নামে মানসিক ভারসাম্যহীন তার এক ছোটভাই নিখোঁজ রয়েছেন। অনেক খোঁজাখুঁজির পরও তাকে পাওয়া যায়নি। লাশটি তার ভাইয়ের হতে পারে বলে দাবি করেন তিনি।


এদিকে আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর এক কর্মকর্তা বলেছেন, বিএসএফ নিহত ব্যক্তির ছবি পাঠিয়েছে। ছবি দেখে স্বজনরা তাকে জলিল বলে শনাক্ত করেছেন।


কড়ইতলী বিজিবি ক্যাম্পের কোম্পানি কমান্ডার আব্দুল মজিদ ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে জানান, মঙ্গলবার ভোরে বাংলাদেশ-ভারত সীমান্তে বিএসএফের গুলিতে এক বাংলাদেশি ব্যক্তি মারা যান।


বর্ডার গার্ড বাংলাদেশ (বিজিবি) ময়মনসিংহ ব্যাটালিয়ানের অধিনায়ক লেফটেন্যান্ট কর্নেল তৌহিদুল ইসলাম বলেন, গতকাল মঙ্গলবার বিকেল ৫টা থেকে সাড়ে ৫টা পর্যন্ত বাংলাদেশের গোবড়াকুড়া সীমান্তে দু’দেশের সীমান্ত কর্মকর্তাদের মধ্যে পতাকা বৈঠক অনুষ্ঠিত হয়। তখন বিএসএফ বলেছে ওইদিন কিছু বাংলাদেশি রাতে সীমান্ত অতিক্রম করে ভারতে প্রবেশ করার চেষ্টা করে। বিএসএফ চ্যালেঞ্জ করলে তারা বিএসএফের ওপর চড়াও হয়। এক পর্যায়ে বিএসএফ গুলি করে। তবে ওই বাংলাদেশির লাশ ফেরত দেয়নি বিএসএফ।


তিনি আরও বলেন, আমরা এখনো লাশ দেখতে পারিনি। লাশ হস্তান্তর করলেই সম্পূর্ণ পরিচয় জানতে পারব। বিএসএফ জানিয়েছে ময়নাতদন্ত সম্পন্নের পর আজ যেকোনো সময় বাংলাদেশি নাগরিকের লাশ হস্তান্তর করা হবে।

  • সর্বশেষ - মহানগর