, ১৮ অগ্রহায়ণ ১৪২৯ অনলাইন সংস্করণ

মধ্যরাতে সাগরে নামবেন ভোলার জেলেরা

  নিজস্ব প্রতিবেদক

  প্রকাশ : 

মধ্যরাতে সাগরে নামবেন ভোলার জেলেরা

সাগরে ইলিশসহ সামুদ্রিক মাছ ধরার নিষেধাজ্ঞা উঠে যাচ্ছে ২৩ জুলাই মধ্যরাত থেকে। এরফলে ৬৫ দিন পর ফের কর্মব্যস্ত হয়ে পড়ছে ভোলার ৬৩ হাজার জেলে। উপকূলের ঘাটে ঘাটে চলছে এখন মাছ ধরার প্রস্তুতি। 

ভোলার উপকূলীয় মৎসঘাট ঘুরে জানা গেছে, শুধু সাগরে মাছ শিকার করে জীবিকা নির্বাহ করেন ভোলায় এমন নিবন্ধিত জেলের সংখ্যা ৬৩ হাজার ৯৫৪ জন। নিষেধাজ্ঞার কারণে গত ২০ মে থেকে তারা সম্পূর্ন বেকার দিন পার করছেন। ২৩ জুলাই মধ্যরাত থেকে নিষেধাজ্ঞা উঠে যাওয়ায় ৬৫ দিনের দীর্ঘ অপেক্ষার পর ফের কর্মব্যস্ত হয়ে পড়বেন জেলেরা।

দৌলতখানের চরপাতা গ্রামের জেলে শাহাবুদ্দিন ও সিরাজ মাঝি  বলেন,‘মাছ ধরা বন্ধ থাকায় এতোদিন সন্তানদের নিয়ে কষ্টে দিন কাটাইছি, এখন মাছ ধরা শুরু হলে আমাদের কষ্ট দুর হবে। পরিবারে স্বচ্ছলতা ফিরে আসবে।’

লালমোহনের বাত্তিরখাল মৎস্য ঘাট এলাকার জেলে সালাউদ্দিন, হেলাল ও মাইনুদ্দিন বলেন,‘শনিবার থেকে মাছ ধরা শুরু হবে। তাই প্রস্তুতি নিচ্ছি। ১৯ জন জেলে নিয়ে আমরা মাছ শিকারে যাবো।

চরফ্যাশনের স্লুইজ ঘাট এলাকার জেলে ইব্রাহিম বলেন,  ‘জাল প্রস্তুত করেছি, ট্রলার মেরামত করেছি এখন বাজার করবো। শনিবার রাতেই মাছ শিকারে নেমে পড়বো।’

জেলা মৎস্য কর্মকর্তা মোল্লা এমদাদুল্যাহ বলেন, ‘যেহেতু মাছ শিকার বন্ধ ছিলো তাই জেলেরা এখন সাগরে বেশি মাছ পাবে। ইলিশ ধরার নিষেধাজ্ঞা সময়ে আমরা নিবন্ধিত প্রত্যেক জেলেকে ৮৬ কেজি করে চাল দিয়েছি।’

  • সর্বশেষ - অন্যান্য